আধার কার্ড তৈরির জন্য দালালেরা মাথাপিছু নিচ্ছে ২০০ টাকা !

আধার কার্ড তৈরির জন্য  দিতে হচ্ছে মাথাপিছু দুশো থেকে আড়াইশো টাকা। চাঞ্চল্যকর এই অভিযোগ উঠেছে  আঊশগ্রাম-২ ব্লকের ভেদিয়া পঞ্চায়েতের দিপচন্দ্রপুর গ্রামে। অভিযোগ সেখানে  মাথা পিছু ২০০-২৫০ টাকা নিয়ে আধার কার্ডের রেজিস্ট্রেশন করানোর অভিযোগের আঙ্গুল উঠল এক অসাধু চক্রের দিকে । বৃহস্পতিবার দিপচন্দ্রপুর গ্রামের একটি বাড়িতে রীতিমত কম্পিউটার বসিয়ে আধার কার্ডের রেজিস্ট্রেশন করানোর কাজ চলে । অভিযোগ , শাসক দলের মদতেই ওই দুইজন আধার কার্ড রেজিস্ট্রেশনের অনুমোদিত সংস্থার প্রতিনিধি হিসাবে নিজেদের পরিচয় দিয়ে এই কাজ করতে থাকে । তাঁরা দাবি করেন আউশগ্রাম-২ ব্লকের বিডিওর কাছ থেকে অনুমতি নিয়েছেন । যদিও বিডিও দীপ্তিময় দাস এই ধরনের অনুমতি দেওয়ার কথা অস্বীকার করেন । তিনি বলেন , ‘ এই ধরনের কোন অনুমতি আমি দিই নি । বিষয়টি খোঁজ নিয়ে দেখছি কারা এই কাজে যুক্ত ।’

প্রসঙ্গত , বিগত কয়েক মাস ধরে বিভিন্ন ব্লকের বিডিও অফিসে আধার নতুন কার্ডের রেজিস্ট্রেশন ও ভুল আধার কার্ডের সংশোধনের কাজ চলছে । রাত জেগে দুরান্তের গ্রাম থেকে মানুষ আসছেন আধার কার্ড করাতে । অনেক মানুষ ভিড়ের চাপে ফিরে যাচ্ছেন । কিন্তু সরকার সমস্ত কাজে আধার কার্ড বাধ্যতামুলক করায় সাধারন মানুষ কিছু অসাধু চক্রের জালে ফেসে যাচ্ছেন । তাঁরা ২০০-২৫০ টাকার বিনিময়ে বাইরে এই কার্ড করিয়ে নিচ্ছেন ।

Leave a Reply