বিষ্ণুপুর মেলার মাঠ পরিদর্শন করে খুশি জেলা সভাধিপতি,আসছেন এক ঝাঁক শিল্পী  

অরুণাভ নিয়োগী (বিষ্ণুপুর),বাঁকুড়া : ২৯তম বিষ্ণুপুর  মেলাকে সাফল্য মন্ডিত করে তুলতে মেলা কমিটির মিটিং চুড়ান্ত পর্যায়ে।প্রস্তাবিত হয় মেলাতে  বিভিন্ন সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের। স্থানীয় শিল্পীদের জন্য থাকছে অনুষ্ঠানের সুযোগ। তাছাড়া থাকবে বড় বড় গায়ক, অভিনেতাদের বিশেষ অনুষ্ঠান। প্রস্তাবিত হয় শান,কুমার শানু,শতাব্দী,দেব,পায়েলের নাম।কালকের মধ্যেই চুড়ান্ত হবে বাইরে থেকে আসা শিল্পীদের নাম।

আজ বিষ্ণুপুর মহকুমা শাসকের অফিসে মেলা কমিটির মিটিং এর পর মেলার স্থান পরিদর্শন করতে যায় মেলা কমিটির সভাপতি তথা সভাধিপতি অরূপ চক্রবর্তী,বিধায়ক তুষার কান্তি ভট্টাচার্য্য সহ অনান্য প্রাশাসনিক আধিকারিকরা।এই বছরও মেলার প্রাঙ্গন ঠিক করা হয় বিষ্ণুপুর হাইস্কুলের মাঠ। বেশ কয়েক বছর এই যায়গাতেই মেলা অওনুষ্ঠিত হচ্ছে। আগে রাজ দরবারের সামনে মেলা অনুষ্ঠিত হত। কিন্তু ওই স্থানে বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ মন্দিরগুলি থাকায়  স্থান পরিবর্তন করা হয় বলে জানা যায়।তার পর থেকেই এই হাইস্কুল মাঠে মেলার আয়োজন করা হয়। আজ ওই স্থান পরিদর্শন করে সন্তুষ্টি প্রকাশ করেন মেলা কমিটির সদস্য ও মেলা কমিটির সভাপতি।

উল্লেখ্য,শিল্প,সংস্কৃতি,পর্যটনের মেলা বিষ্ণুপুর মেলা।আন্তর্জাতিক স্তরে খ্যাত এই মেলা। চলবে ২৩ডিসেম্বর থেকে ২৭ডিসেম্বর। জানাগেছে,এই বছর মেলার থিম-‘উন্নয়নে বাঁকুড়া’। বৈঠকে প্রস্তাবিত হয়েছে,প্রথমদিন সারা জেলার প্রায় তিন হাজারের বেশি শিল্পী র‍্যালিতে  পা মেলাবেন।থাকবে ছৌ-নাচ,টুসু,বাউল,ধামসা-মাদল। বিষ্ণুপুর ঘরনারা শিল্পীদেরকে সংবর্ধনা দেওয়ার পাশাপাশি দেওয়া হবে বিশেষ সম্মান।

Leave a Reply