পূর্ব বর্ধমানে শুরু হবে গ্রিন বাস, ইলেকট্রিক বাস খড়্গপুরের আই আই টির সাহায্য নিচ্ছে রাজ্য

আমার বাংলা ওয়েব ডেক্স : পূর্ব বর্ধমান শহরের পরিবহণ ব্যবস্থাকে ঢেলে সাজানো ও যাত্রী স্বাচ্ছন্দ্য নিয়ে খড়গপুরের বিশেষজ্ঞদের সাহায্য নেবে রাজ্য পরিবহণ দপ্তর। শহরে শুরু হবে গ্রিন বাস ও ইলেকট্রিক বাসও। আজ পূর্ব বর্ধমান শহরে জেলাশাসকের সঙ্গে এক বৈঠকে এসে একথা জানালেন রাজ্যের পরিবহন সচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়।

এদিন শহরের ব্যবসায়ীদের স্বার্থে রাজ্যের পরিবহণ সচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায় জেলা প্রশাসন ও ব্যবসায়ীদের নিয়ে একটি গুরুত্বপূর্ন বৈঠক করলেন। বৈঠকে পরিবহণ ব্যবস্থা নিয়ে মূলত এদিন বর্ধমান শহর সংলগ্ন তিরিশ কিলোমিটারের মধ্যে বাস চালু করা নিয়ে বৈঠকে হয়।  রাজ্য পরিবহণ সচিবের নেতৃত্বে এদিনের বৈঠকে প্রত্যেকের মতামত জানতে চাওয়া হয় শহরের বাস পরিসেবা নিয়ে। বৈঠক শেষে আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায় জানান আগামী দিনের মধ্যেই বর্ধমান শহরের এস বি এস টিসি চারটে নতুন মিনিবাস চালু করবে। সরকারি মিনিবাস গুলি শহরের দুই প্রান্তে বাসস্ট্যান্ডগুলির মধ্যে যোগাযোগ রক্ষা করবে। পরবর্তীকালে গ্রিন বাস এবং ইলেকট্রিক বাসও চালু করার চেষ্টা করা হবে। তিনি জানান এই মুহুর্তে বেসরকারি পরিসেবার মিনিবাস এক মিইট ২২ সেকেন্ড অন্তর যাতায়ত করে বলে মিইবাস অ্যাসোসিয়েশনের পক্ষ থেকে জানা গেছে। এরপরেও চারটে নতুন বাস দেওয়া হচ্ছে। তাই আরো নতুন বাসের শহরে প্রয়োজন আছে কি না সেই জন্য আই আই টি খড়গপুরের পরামর্শ চাওয়া হবে।

পূর্ব বর্ধমানের জেলাশাসক অনুরাগ শ্রীবাস্তব বলেন, মুখ্যমন্ত্রী নির্দেশ দিয়েছে গ্রীণ সার্ভিস চালু করার জন্য। তাই নতুন করে ফের আইআইটি খড়গপুরের বিশেযজ্ঞদের দিয়ে বর্ধমান শহরের এই পরিবহণ ব্যবস্থার একটি সার্ভে করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। তাদের সুপারিশ আসার পরই পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। এছাড়াও বর্ধমান শহরেও অন্যান্য শহরের মত গ্রীণ বাস (সিএনজি) এবং ইলেকট্রিক বাস চালু করারও চেষ্টা করছে রাজ্য পরিবহণ দপ্তর।